লৌহজংয়ে অপহৃত স্কুলছাত্রী ৯ দিনেও উদ্ধার হয়নি

লৌহজং উপজেলার কনকসার গ্রামের এক স্কুল ছাত্রীকে অপহরণের অভিযোগ করেছেন ছাত্রীটির বাবা হাজী শফিকুল ইসলাম ঢালী। সে অপহরণের অভিযোগ এনে লৌহজং থানায় একটি অভিযোগ দাখিল করলেও দীর্ঘ ৯ দিনেও উদ্ধার হয়নি ছাত্রীটি।

জানা যায়, উপজেলার ব্রাহ্মণগাঁও উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রী মেহজাবীন (১৩) স্কুলে যাওয়া আসার পথে উপজেলার হলদিয়া এলাকার করিম ভিস্তির ছেলে যুবরাজ ভিস্তি (২৪) বিভিন্ন সময় তাকে প্রেমের প্রস্তাব দেয়াসহ উত্ত্যক্ত করত। এসব বিষয়ে মেহজাবীনের বাবা হাজী শফিকুল ইসলাম ঢালী যুবরাজের বাবাকে অবহিত করেন বেশ কয়েকবার। শফিকুল ইসলামের অভিযোগ যুবরাজের পরিবার এসব বিষয়ে সব জানার পরও কোন রকম প্রতিকার না করে তারা ছেলেকে এসব বিষয়ে আরও উৎসাহ দেয়।

গত ২৮ সেপ্টেম্বর মেহজাবীনকে সকালে বাড়ি থেকে বেরিয়ে প্রাইভেট পড়া শেষ করে স্কুলে যাওয়ার পথে কনকসারের ফকির বাড়ির কাছে বটতলা এলাকা থেকে জোরপূর্বক অপহরণ করে অজ্ঞাত স্থানে নিয়ে যায় যুবরাজ ও তার সঙ্গীরা। মেয়ে স্কুল থেকে বাড়ি না ফেরায় অনেক খোঁজাখুঁজি শেষে অপহরণের বিষয়টি জানতে পারে শফিকুল ইসলাম। এ বিষয়ে মেহজাবীনের বাবা বাদী হয়ে লৌহজং থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে ওই দিনই একটি মামলা দায়ের করেন।

জনকন্ঠ