উৎসবমুখর পরিবেশে শারদীয় দুর্গোৎসব

দেবী দুর্গা হলেন শক্তির রূপ। সনাতন ধর্মশাস্ত্র অনুসারে দেবী দুর্গা ‘দুর্গতিনাশিনী’ বা সকল দুঃখ দুর্দশার বিনাশকারিনী। তাই দুর্গাপূজা এখন সার্বজনীন ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সকলের প্রাণের উৎসব। প্রতিবারের ন্যায় এবারও মুন্সীগঞ্জ জেলার ২৮৩টি পূজামণ্ডপে আলোক সজ্জা ও ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্যদিয়ে হিন্দু ধর্মাবলম্বীরা দুর্গা দেবীর পূজার আয়োজন করেছে। আর প্রশাসনের পক্ষ থেকে নেয়া হয়েছে ব্যাপক নিরাপত্তা ব্যবস্থা। জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে পুলিশের পাশাপাশি আনসার ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন মোতায়েন করা হয়েছে পূজা মণ্ডপ গুলোতে।

দেশের প্রায় প্রতিটি জেলার মতো সনাতন ধর্মাবলম্বীরা মুন্সীগঞ্জ জেলাতেও যথাযথ মর্যাদায় সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব দুর্গাপূজা পালন করছেন। এর মধ্যে জেলার সিরাজদিখান উপজেলায় ৯৬টি, শ্রীনগর উপজেলায় ৬৭টি, টঙ্গীবাড়ীতে ৪৭, লৌহজংয়ে ৩০টি, গজারিয়ায় ৯টি ও মুন্সীগঞ্জ সদরে ৩৪টি মণ্ডপে দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। মুন্সীগঞ্জ সদরের শ্রী শ্রী জয়কালী মাতা মন্দির, ইদ্রাকপুর লক্ষ্মীনারায়ণ জিউর মন্দির, বাগমামুদালীর বালুরমাঠ দুর্গা মন্দিরসহ পঞ্চসার ইউনিয়নের বিভিন্ন মন্দির ঘুরে দেখা যায়, আনন্দ ঘন পরিবেশ ও প্রশাসনিক নিরাপত্তা বেষ্টনী মধ্যদিয়ে পূজা উৎজাপিত হচ্ছে।

এদিকে, ধর্মীয় এ উৎসবকে ঘিরে জেলার হিন্দুপাড়া গুলোতে শারদীয় উৎসবের আমেজ চলছে। উঁচু নিচুর বিভেদ ভুলে সমাজের সকল স্তরের মানুষকে একত্রে করে মহা-মিলন হয় পূজা মণ্ডপ গুলোতে। দর্শনার্থীরা দেবী দুর্গাকে শ্রদ্ধা নিবেদন করে এবং জাতির মঙ্গল কামনায় প্রার্থনা করে।

জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে জানা যায়, সার্বক্ষণিক নিরাপত্তা প্রদান করা হয়েছে পূজা মণ্ডপ গুলোতে এবং সাদা পোশাকে থাকছে বাড়তি নজরদারি যা থাকবে প্রতিমা বিসর্জনের শেষ দিন পর্যন্ত।

পূর্ব পশ্চিম

Leave a Reply

Please log in using one of these methods to post your comment:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s